কেন বৃষ্টির ভেতর রাইড

কেন বৃষ্টির ভেতর রাইড করবেন না – ১০টি কারণ!

81 / 100

কেন বৃষ্টির ভেতর রাইড করবেন না – জেনে নিন ১০টি কারণ!

কেন বৃষ্টির ভেতর রাইড করবেন না – ১০টি কারণ! কথায় আছে যে, যদি কেউ বৃষ্টির ভেতর রাইড করতে ভাল না বাসে, তবে সে রাইড করতে ভালবাসেন না। তাই অনেক রাইডার আছেন বৃষ্টির ভেতর রাইড করতে পছন্দ করেন। কিন্তু অনেক রাইডার আছেন যারা বৃষ্টির ভেতর রাইড করতে পছন্দ করেন না। কারণ বৃষ্টির ভেতর রাইড করতে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। চলুন জেনে নেওয়া যাক কেন বৃষ্টির ভেতর রাইড করবেন না – ১০টি কারণ!

১. বৃষ্টির দিন সাধারণত রাস্তা ভেজা ও আবহাওয়া ঠান্ডা হয়ে থাকে। আবার যখন সব কিছু শুকিয়ে যায় তখন আদ্রতা ও উষ্ণতা কিছুটা বেড়ে যায়। রাইডিং এর জন্য এই আবহওয়ার পরিবর্তন কিছুটা সমস্যার সৃষ্টি করে থাকে। তাই এই সময়ে অনেক রাইডার রাইড করতে চান না।

২. বৃষ্টির মধ্যে রাইড করার সময় রাইডারের উচিত ওয়াটারপ্রুফ স্যুট পরা বা রেইনকোট পরা। রাইডারের আরও উচিত রাইডিং টাইপ অনুযায়ী সেফটি গিয়ার্স পরা। তাই এই সব বিষয়ে সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত।

৩. অন্যান্য দিনের চেয়ে, বৃষ্টির মধ্যে অতিরিক্ত গিয়ার্স নিয়ে রাইড করতে হয়। যদিও এটা কিছুটা ঝামেলার। গিয়ার্স গুলো খুলে রাখতে হয় বৃষ্টি শেষ হলে, যেটা বেশ কষ্টদায়ক এবং ঝামেলারও।

৪. বৃষ্টির ভেতর রাইড করবেন না কেননা অন্যান্য দিনের চাইতে বৃষ্টির দিনে রাইড করা একটু হলেও ঝামেলার এবং কষ্টের । কারণ এই সময়ে হঠাৎ আবহওয়ার পরিবর্তন হওয়ার ফলে, পরিবেশ আদ্রতা, তাপমাত্রা ও উষ্ণতার ব্যাপারটি বেশ বিরক্তকরও বলা যায়। বৃষ্টির সময় রাইড করার পর অসুস্থতা ধরে বসতে পারে।

৫. রাস্তার অবস্থা বৃষ্টির দিনে বেশ খারাপ এবং ঝুঁকিপূর্ন পিচ্ছিল ও কর্দমাক্ত হয়ে থাকে। ফলে দুর্ঘটনা হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।বৃষ্টির দিনে রাইড করা বেশ ঝুঁকিপূর্ন। তাই বৃষ্টির দিনে রাইডাররা তেমন রাইড করতে চান না।

৬. বৃষ্টির দিনে রাইড করার সময় বাইকের কন্ট্রোল, ব্রেকিং, গ্রীপ ও ভিজিবিলিটও কিছুটা হলেও কমে যায়। । তাই আপনি বুঝতেই পারছেন ঝুঁকি কতটা হবে, তাই বৃষ্টির দিনে রাইড না করাই ভালো।

৭. ভারী বৃষ্টিপাতের ফলে ট্রাফিক জ্যামের সময় খুবই বিপদজনক হয়ে দাড়ায়। ছোট ছোট বা চিকন রাস্তা বা পাহাড়ের রাস্তাগুলো পিচ্ছিল হয়ে যায় ফলে অনেক বেশি বিপদে পরার সম্ভাবনা থাকে। তাই এই সময়ে রাইডিং না করাই ভালো।

৮. বৃষ্টির মধ্যে রাইড করার সময় বাইকের কন্ট্রোলিং পার্টসের কিছুটা ক্ষতি হয়ে থাকে। বৃষ্টির সময় রাইড করলে বাইকের কন্ট্রোলিং কেবল, লিভার পিভোট, ব্রেক সু, বেয়ারিং এই গুলো খুব দ্রুত নষ্ট হয়ে যাবার সম্ভাবনা রয়েছে।

৯. বৃষ্টির ভেতর রাইড করবেন না কারণ বৃষ্টির মধ্যে যদি রাইড করা হয় তাহলে এই সময়ে সব সময় মেইন্টেনেন্স এবং সতর্কতা জরুরী। বৃষ্টির সময় রাইড করলে বাইকের পার্টস কেবল ও ওয়ারিং এর সমস্যা দেখা দেয়। এই কারণেও বৃষ্টির দিনে রাইডাররা রাইড করতে আগ্রহী হয় না।

১০. অন্যান্য সময়ে রাইড করার চেয়ে বৃষ্টির সময় রাইড করা দ্বিগুন বা তারও বেশি ঝুঁকিপূর্ন।বৃষ্টির সময়ে রাইড করতে গিয়ে রাইডারা যত সমস্যার সম্মুখীন হন অন্য সময় একজন রাইডার এত বেশি সমস্যার মধ্যে পরেন না । এটা যেমন রাইডারের কম্ফোর্ট কমিয়ে দেয় তেমনি আবার সব কিছু নোরাং করে দেয়।

তাই এই সব কারণে রাইডাররা বৃষ্টির সময়  সাধারণত রাইড করেন না বা করতে চান না।

ধন্যবাদ।  

Join Us

Facebook | Linkedin

Leave a Comment

Your email address will not be published.